বিভাগ: ক্রীড়া

সেই ফুটবলই উৎসব-রঙিন

57আরিফ সোহেল: ফুটবলে উৎসবের গ-িটা ক্রমে ছোট হয়ে পড়ছে বাংলাদেশে। জমে উঠছে না ঘরোয়া আয়োজনও। চলছে দর্শকদের বিপুল খরা। ঠিক সেই সময়েই ফুটবলে কিছুটা হলেও প্রাণের সঞ্চার করেছে অনূর্ধ্ব-১৮ সাফ মিশনে বাংলাদেশ দল। ভারত, মালদ্বীপ, ভুটানের বিপক্ষে জয় তুলে নিয়ে রানার্সআপ বাংলাদেশ। সমান পয়েন্ট নিয়েও নেপাল জিতেছে আসরের শিরোপা। চ্যাম্পিয়ন হতে না পারলেও ব্যক্তিগত নৈপুণ্যে আসরের স্পটলাইটে জ্বলজ্বল করছে জাফর ইকবালের নাম।
ভুটানের রাজধানী থিম্পুর চ্যাংলিমিথাং স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ শেষ এবং গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে স্বাগতিক দলকে ২-০ গোলে হারিয়ে যখন শিরোপার গন্ধ পাচ্ছিল; পরের ম্যাচে ভারত নেপালে হেরে যাওয়ায় তা হাওয়ায় মিইয়ে গেছে। চার দলের আসরে তিন জয়ে ৯ পয়েন্ট বাংলাদেশের। নেপালও অর্জন করেছিল ৯। কিন্তু হেড টু হেডের সরল সমীকরণের ফাঁদে পড়ে নেপালের কাছেই শিরোপা ছেড়ে দিতে হয়েছে জাফরদের।
বলতে দ্বিধা নেইÑ ধুঁকতে থাকা জাতীয় দলের ব্যর্থতা আর হতাশায় উল্টোপিঠে যুব ফুটবলাররা নতুন স্বপ্নের জয়গান গেয়েছেন। অনূর্ধ্ব-১৮ সাফে শিরোপা জেতা হয়নি; কিন্তু ভারতের বিপক্ষে ৩-০ গোলে পিছিয়ে থেকেও জয়; মালদ্বীপ, ভুটানকে হারানোÑ এসবই নতুন করে স্বপ্ন দেখাচ্ছে ফুটবলপ্রেমীদের।
58আসরের অন্যতম নাম জাফর ইকবাল। গোল করতে না পারা, ফিনিসিংয়ের অভাব যখন দেশের স্ট্রাইকারদের নিত্যসঙ্গী, তখন ৫ গোল করে সর্বোচ্চ স্কোরার এই ফুটবলার। তার নৈপুণ্যেই বাংলাদেশের ফুটবলের ডালপালা মেলেছে স্বপ্ন। সাফ ফুটবলের পর এবার টার্গেট এএফসি চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাই। ৩১ অক্টোবর থেকে শুরু হতে যাওয়া এএফসি অনূর্ধ্ব-১৯ বি-গ্রুপের বাছাইয়ে, শ্রীলংকা মালদ্বীপকে নিয়ে খুব ভাবনা না থাকলেও কঠিন পরীক্ষায় পড়তে হবে উজবেকিস্তান, স্বাগতিক তাজিকিস্তানের মতো শক্তিধরদের বিপক্ষে। অনূর্ধ্ব-১৮ সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ বাংলাদেশকে দিয়েছে বড় কিছু। এই টুর্নামেন্ট ফুটবল নিয়ে নতুন স্বপ্ন দেখায় বাতিঘর হয়ে দেখা দিয়েছে। যেখানে বাংলাদেশের স্বপ্নের ফেরিওয়ালা হচ্ছে জাফর ইকবালরা!

এশিয়া কাপ হকির জমজমাট আয়োজন
মওলানা হকি স্টেডিয়ামে বসেছে ফ্লাড লাইট। সেই আলোতেই এবার বসছে ১০তম পুরুষ এশিয়া কাপ হকি। ১৯৮৫ সালে প্রথম ও শেষবার বাংলাদেশে হকির এশিয়া কাপ আয়োজন করেছিল বাংলাদেশ। এই আসরে সবচেয়ে পিছিয়ে জিমি-চয়নদের দল। তাই টার্গেট ¯্রফে ভালো খেলা। এই আসরকে ঘিরে জমকালো সমাপণী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে আট জাতির এই আসরে উপস্থিত থাকছেন ক্রীড়াবান্ধব প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
ক্যালেন্ডারের হিসাব বলছে, ৩২ বছর পর এশিয়া কাপ হকির আসর বসতে যাচ্ছে বাংলাদেশে। ১১ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হতে যাওয়া এই আসরকে ঘিরে মওলানা ভাসানী স্টেডিয়ামে ব্যাপক সংস্কার হয়েছে। কোচ মাহবুব হারুনের অধীনে অনুশীলনে বেজায় ব্যস্ত রাসেল মাহমুদ জিমি, মামুনুর রহমান চয়নরা। ঘরের মাঠে নিজেদের উজাড় করা পারফরমেন্সে আসরটিকে স্মরণীয় করে রাখার পণ বাংলাদেশ হকি দলের। টুর্নামেন্টে টার্গেট ষষ্ঠ স্থান। এশিয়া কাপে খেলতে কোয়ালিফাইং রাউন্ড পেরুতে হচ্ছে বাংলাদেশের। একসময় বাংলাদেশ সরাসরি খেলতো এশিয়া কাপে। এবার আসরে এশিয়া কাপে ষষ্ঠ হতে পারলে কোয়ালিফাইং রাউন্ডে খেলার প্রয়োজন হবে না বাংলাদেশের।
আসরের মেয়াদ ১২ দিন; ১১-২২ অক্টোবর। অনুষ্ঠিত এশিয়া কাপে বাংলাদেশ খেলছে ‘এ’ গ্রুপে। সেখানে প্রতিপক্ষ ভারত, জাপান ও পাকিস্তান। ‘বি’ গ্রুপে খেলবে মালয়েশিয়া, কোরিয়া, চীন ও ওমান।
এশিয়া কাপ হকির জন্য বাংলাদেশের চূড়ান্ত দলÑ রাসেল মাহমুদ জিমি (অধিনায়ক), পুস্কর ক্ষিসা মিমো (সহকারী অধিনায়ক), অসিম গোপ, আবু সাইদ নিপ্পন, আশরাফুল ইসলাম, খোরশেদুর রহমান, ফরহাদ আহমেদ সিটুল, রেজাউল করিম বাবু, ইমরান হাসান পিন্টু, মামুনুর রহমান চয়ন, রুম্মান সরকার, নাইম উদ্দিন, হাসান যুবায়ের নিলয়, সারোয়ার হোসেন, কামরুজ্জামান রানা, মিলন হোসেন, মাইনুল ইসলাম কৌশিক ও আরশাদ হোসেন।
ফুটবলে নতুন স্বপ্নে সুবাতাস, এশিয়া কাপ হকির রাজসিক আয়োজনের সৌরথের মধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকায় বাংলাদেশ দলের হারের অপ্রত্যাশিত কান্নাচোখ, ময়মনসিংহের কলসিন্দুর নারী ফুটবলার সাবিনা আক্তারের অকাল মৃত্যু ক্রীড়াঙ্গনের উৎসবের বাতায়নে বেদনার কালো ছায়া টেনে দিয়েছে।

পাঠকের মন্তব্য:

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না। তারকাচিহ্নযুক্ত (*) ঘরগুলো আবশ্যক।

*